সেদ্ধ করার পর কত সময়ের মধ্যে ডিম খাওয়া উচিৎ

সেদ্ধ ডিম আমাদের জীবনে খুবই প্রসিদ্ধ একটি খাবার। ছোট থেকে বৃদ্ধ প্রায় সবাই নিয়মিত সেদ্ধ ডিম খেয়ে থাকেন। তবে অনেকেরই হয়তো জানা নেই সেদ্ধ করার কতক্ষণ পর্যন্ত খাওয়া যেতে পারে ডিম।

সকালের নাস্তায় বা অফিসের টিফিনে অনেকেই সেদ্ধ ডিম রাখেন। অনেক খাবারের সঙ্গে স্বাস্থ্যকর খাবার হিসাবে ডিম খাওয়া যেতে পারে। অফিসে বেরোনোর আগে সেদ্ধ করে রাখা ডিম দুপুর পেরিয়ে খাচ্ছেন। কোনও ক্ষতি হচ্ছে না তো? আদৌ কতটা স্বাস্থ্যকর এই অভ্যাস?

চলুন দেকেহে নেওয়া যাক সেদ্ধ ডিম কত সময় পর্যন্ত ঠিক থাকে- সেদ্ধ করে রাখা ডিম ফ্রিজে রাখলে সপ্তাহখানেক ভাল থাকে। তবে তা না হলে সেদ্ধ করার প্রায় ঘণ্টা তিনেকের মধ্যে সেদ্ধ ডিম খাওয়াই ভাল। কারণ সেদ্ধ ডিম বেশি ক্ষণ ভাল থাকে না।

সেদ্ধ করা ডিম ভাল রাখতে তাপমাত্রার দিকে খেয়াল করা জরুরি। ডিম সংরক্ষণ করতে ৪.৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসের কম তাপমাত্রা প্রয়োজন। ফ্রিজের এই তাপমাত্রায় সেদ্ধ ডিম খোসাসহ রেখে দিলে কিছু দিন ভাল থাকবে। খোসা ছাড়িয়ে রাখলে ডিম নষ্ট হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে।

আরও পড়ুন : আমরা সারাদিন ঘরের ভেতরে থাকি। আর ঘরে থেকে বের হই শুধু কাজের জন্য। কিন্তু সানবাথ নেয়ার সময় হয়ে ওঠে না। দুঃখের বিষয়, আজকাল বেশিরভাগ মানুষ ত্বকের সমস্যায় ভোগেন। আর এই ত্বকের সমস্যার অন্যতম কারণ ভিটামিন ডি এর অভাব।

এই ভিটামিন ডি সকালে সূর্যের আলোতে প্রচুর পরিমাণে পাওয়া যায়। নিজের স্বাস্থ্যের কথা বিবেচনা করে প্রতিদিন ১৫ মিনিট রোদে থাকার চেষ্টা করুন। এতে করে শরীরে যে সমস্যা দূর হবে চলুন তবে জেনে নেয়া যাক সে সম্পর্কে-

> একটি সানবাথ গ্রহণ ত্বকের শীর্ষতম স্তরে পাওয়া নাইট্রিক অক্সাইডকে সক্রিয় করতে সহায়তা করে। এটি রক্তনালী প্রশস্ত করে রক্ত সঞ্চালন উন্নত করে। সেই সঙ্গে রক্তচাপ পরীক্ষা করতে সহায়তা করে।

> আপনি যদি অনিদ্রায় ভুগে থাকেন তবে স্লিপিং পিলের পরিবর্তে রোদে থাকার চেষ্টা করুন কিছুক্ষণ। রোদে মেলাটোনিন উৎপাদন করতে সাহায্য করে যা ঘুম ভালো করে।

> যদি আপনি ভাবেন যে সূর্যের রশ্মি আপনার ত্বকের ক্ষতি করে সেই সঙ্গে আপনার ভাবা উচিত সকালের রোদে গোসল করা আপনার স্কিনের জন্য উপকারী হতে পারে। সিওরিয়াসিসের ক্লাইমেথোথেরাপির জার্নালে প্রকাশিত একটি সমীক্ষা অনুসারে, একটি সানবাথ আপনার ত্বকের সমস্যাগুলো সমাধান করতে পারে।

> অনেক আগে থেকেই সূর্যালোক রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর জন্য যাদুকরী একটি উপায়।

> ভিটামিন ডি এর উপস্থিতির কারণে শরীরে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ হয়।

> ভিটামিন ডি এখানে একটি বড় ভূমিকা পালন করে, কারণ এটি দেহে ক্যালসিয়ামের আরো ভালো শোষণে সহায়তা করে এবং আপনার হাড়কে আগের চেয়ে শক্তিশালী করে তোলে।

> একটি সানবাথ গ্রহণ আপনার মন মেজাজকে ভালো রাখে। ১৫ মিনিটের সানবাথ আপনার মন ভালো রাখবে।

> ভিটামিন ডি চোখ ভালো রাখতে সাহায্য করে। মাত্র ১৫ মিনিটের জন্য রোদে দাঁড়িয়ে থাকুন তাহলেই যথেষ্ঠ।

> আমেরিকান মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশন জার্নালে প্রকাশিত একটি সমীক্ষা অনুসারে দেখা গেছে যে, উজ্জ্বল আলোর সংস্পর্শ অ্যালঝেইমার রোগীদের হতাশা এবং ভুলে যাওয়ার লক্ষণ কমায়।

About admin

Check Also

আমি কি শাবনূর-মৌসুমীর চেয়েও বুড়ো?-পূর্ণিমা

অনেকেই বলে, আমি সিনিয়র অভিনেত্রী। ক্যারিয়ারের দিক থেকে আমার চেয়ে শাবনুর আপু ১০ কিংবা মৌসুমী …